জয়পুরহাট

জয়পুরহাট

বৃহত্তর নওগাঁ, দিনাজপুর ও বগুড়া জেলার নিকটবর্তী রাজশাহী বিভাগের অধীন প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যমন্ডিত একটি ছোট্ট জেলা জয়পুরহাট। জয়পুরহাট জেলার আনাচে-কানাচে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে অনেক নান্দনিক ও ঐতিহাসিক স্থান। এ জেলার দিগন্ত বিস্তৃত সবুজ ফসলের মাঠ যে কোন ভ্রমণ পিপাসুকেই মুগ্ধ করবে । এ ছাড়াও অষ্টম শতাব্দীর পাল বংশীয় রাজা ধর্ম পালের পাহাড়পুর বৌদ্ধ বিহার জয়পুরহাট জেলার অতি নিকটে নওগাঁ জেলার বদলগাছী উপজেলায় অবস্থিত এবং বাংলাদেশের অন্যতম স্থলবন্দর হিলি জয়পুরহাট জেলার নিকটে দিনাজপুরের হাকিমপুর উপজেলায় অবস্থিত। 

জয়পুরহাট জেলা বাংলাদেশের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের রাজশাহী বিভাগের একটি প্রশাসনিক অঞ্চল। জয়পুরহাট জেলার উত্তরে রয়েছে গাইবান্ধা জেলা, দিনাজপুর জেলা এবং ভারত সীমান্ত, দক্ষিণে রয়েছে বগুড়া জেলা ও নওগাঁ জেলা, পূর্বে বগুড়া জেলা ও গাইবান্ধা জেলা, এবং পশ্চিমে নওগাঁ জেলা ও ভারত সীমান্ত। এ অঞ্চলে বিভিন্ন আদিবাসী সম্প্রদায় বাস করে যেমন সাঁওতাল, মুন্দা, ওরাঅন, কচরাজবংশি। ১৬শ এবং ১৭শ শতাব্দী পর্যন্ত জয়পুরহাটের ইতিহাস সম্পর্কে কোন তথ্য পাওয়া যায়নি তবে, এই অঞ্চলটি পাল ও সেন রাজবংশের অধীনে ছিল। প্রাচীন আমলে জয়পুরহাটের নাম ছিল বাঘাবাড়ীহাট এবং পরবর্তীতে এই জেলার নাম হয় গোপেন্দ্রগঞ্জহাট। অনেক বলে থাকে পাল সাম্রাজ্যর রাজা জয়পালের নামে এই জেলার নামকরন কর হয় জয়পুরহাট।

স্বাধীন বাংলায় বৃটিশ শাসনামলে ১৮২১ সালে বৃহত্তর রাজশাহী জেলার চারটি, রংপুর জেলার ২টি ও দিনাজপুর জেলার ৩টি থানা নিয়ে যে বগুড়া জেলা গঠিত হয়েছিল তারই অংশ নিয়ে ১৯৭১ সালে প্রথমে জয়পুরহাট মহকুমা এবং পরবর্তীকালে ১৯৮৪ সালে জয়পুরহাট জেলা গঠিত হয়।

জয়পুরহাটের আয়তন ৯৬৫.৮৮ বর্গ কিলোমিটার। লোকসংখ্যাঃ ৯,৫০,৪৪১ জন। জয়পুরহাট জেলা ৫টি উপজেলায় বিভক্ত। এছাড়া এখানে ৫টি পৌরসভা, ৩২টি ইউনিয়ন, ৯৮৮টি গ্রাম, ও ৭৬২টি মৌজা রয়েছে। উপজেলা গুলো হচ্ছে- জয়পুরহাট সদর, পাঁচবিবি, কালাই, আক্কেলপুর, ক্ষেতলাল। প্রদান নদ-নদীঃ ছোট যমুনা, তুলসিগঙ্গা, হরবতী নদী।

 

দর্শনীয় স্থান

  • বেল আমলা বার শিবালয় (শিব মন্দির),জয়পুরহাট সদর
  • পাগলা দেওয়ান বধ্যভূমি, জয়পুরহাট সদর
  • পাথরঘাটা মাজার, পাঁচবিবি
  • ভীমের পান্টি, মঙ্গলবাড়ি, জয়পুরহাট সদর
  • দুয়ানী ঘাট, জয়পুরহাট সদর
  • গোপীনাথপুর মন্দির, আক্কেলপুর
  • হিন্দা-কসবা শাহী জামে মসজিদ, ক্ষেতলাল
  • নিমাই পীরের মাজার, পাথরঘাটা, পাঁচবিবি
  • আছরাঙ্গা দীঘী
  • নান্দাইল দীঘি, কালাই।
  • শিশু উদ্যান,জয়পুরহাট।
  • বাস্তবপুরী, জয়পুরহাট
  • হিন্দা-কসবা শাহী জামে মসজিদ, ক্ষেতলাল;
  • আছরাঙ্গা দীঘী, ক্ষেতলাল;
  • লকমা জমিদার বাড়ি, পাঁচবিবি;
  • পাথরঘাটা মাজার, পাঁচবিবি;
  • গোপীনাথপুর মন্দির, আক্কেলপুর;
  • বার শিবালয় মন্দির,জয়পুরহাট;
  • দুয়ানী ঘাট, জয়পুরহাট সদর;
  • পাথরঘাটা, পাঁচবিবি।
  • বদ্ধভুমি- আক্কেলপুর

কৃতি ব্যক্তিত্ব

  • আব্বাস আলী খান – বিতর্কিত রাজনীতিবিদ, মানবতাবিরোধী অপরাধের জন্য দালাল আইনে যাবজ্জীবন দন্ডপ্রাপ্ত;[৩]
  • মরহুম গোলাম রাব্বানী ( সাবেক সংসদ সদস্য জয়পুরহাট ১)
  • খুরশীদ আলম (কণ্ঠশিল্পি)
  • মনতাজুর রহমান আকবর (চলচ্চিত্র পরিচালক, চিত্রনাট্যকার)
  • দিলরুবা খানম (কন্ঠ শিল্পী)
  • ফাতেমা তুজ জোহরা (কন্ঠ শিল্পী)
  • শামসুদ্দিন হীরা ( সংগীত সুরকার ওগীতিকার)
  • কবি আতাউর রহমান [৪]
  • আব্দুল আলীম-সাবেক রেলমন্ত্রী
  • মরহুম মোজাহার আলী প্রধান (সাবেক সংসদ সদস্য জয়পুরহাট-১)

 

কিভাবে যাবেন?

সড়কপথ এবং রেলপথের সাহায্যে খুব সহজে ঢাকা থেকে জয়পুরহাট যাওয়া যায়। ঢাকা থেকে সরাসরি বাস, ট্রেন আছে। ঢাকা হতে জয়পুরহাটগামী আন্তঃনগর ট্রেনের সময়সূচীঃ

ট্রেন নং নাম বন্ধের দিন হইতে ছাড়ে গন্তব্য
৭০৫ একতা এক্সপ্রেস মঙ্গলবার ঢাকা ১০:০০ পঞ্চগড়
৭৫৭ দ্রুতযান এক্সপ্রেস বুধবার ঢাকা ২০:০০ পঞ্চগড়
৭৬৫ নীল সাগর এক্সপ্রেস সোমবার ঢাকা ০৮:০০ চিলাহাটী

 

Share this post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


error: Content is protected !!